Templates by BIGtheme NET

দ্বিতীয় ওয়ানডেতেও দাপুটে জয় পেল বাংলাদেশ

লিটন দাশ ও ইমরুল কায়েসের দুর্দান্ত ব্যাটিং পারফরম্যান্সে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতেও দাপুটে জয় পেল বাংলাদেশ। আর এ জয়ের ফলে এক ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ ২-০তে নিজেদের করে নিয়ে টাইগাররা। এদিন ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে জয় নিশ্চিত করে মাশরাফিবাহিনী।

প্রথমে ব্যাট করা জিম্বাবুয়ে নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে ২৪৬ রান করে। জবাবে ৪৪.১ ওভারেই ৩ উইকেট হারিয়ে ২৫০ করে জয় পায় বাংলাদেশ। মুশফিকুর রহিম ৫২ বলে ৪০ ও মোহাম্মদ মিঠুন ২১ বলে ঝড়ো ২৪ করে অপরাজিত থেকে জয় তুলে নেন। তবে সেঞ্চুরি বঞ্চিত হন লিটন ও ইমরুল।

৪৬ বলে ঝড়ো হাফসেঞ্চুরি তুলে নেওয়া লিটন দাশ আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছাড়েন। সিকান্দার রাজার বলে আউট হওয়ার আগে ৭৭ বলে ১২টি চার ও একটি ছক্কায় ৮৩ রানে ঝলমলে একটি ইনিংস খেলেন তিনি। ওপেনিং জুটিতে তিনি ইমরুল কায়েসের সঙ্গে ২৪ ওভারে ১৪৮ রান তোলেন। লিটন দাশের পর দ্রুতই বিদায় নেন ফজলে রাব্বি। এই সিরিজেই অভিষিক্ত এই টপঅর্ডার টানা দুই ম্যাচেই শূন্য রানে বিদায় নিলেন। এদিন সিকান্দার রাজার বলে এগিয়ে খেলতে গিয়ে উইকেটরক্ষক ব্র্যান্ডন টেইলরের স্ট্যাম্পিংয়ের শিকার হন তিনি।

সেঞ্চুরির খুব কাছে এসেও বঞ্চিত হলেন ইমরুল কায়েস। টানা দুই ম্যাচে তিন অঙ্কের ঘরে যাওয়ার দারুণ একটি সুযোগ ছিল তার সামনে। কিন্তু ১১১ বলে ৭টি চারের সাহায্যে ৯০ রান করা এ বাঁহাতি সিকান্দার রাজাকে তুলে মারতে গিয়ে এলটন চিগুম্বুরার ক্যাচে পরিণত হন। সিরিজের প্রথম ম্যাচে তিনি ১৪৪ রানের অসাধারণ একটি ইনিংস খেলেছিলেন।

এর আগে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডেতে বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রথমে ব্যাট করে নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে ২৪৬ রান সংগ্রহ করে জিম্বাবুয়ে। সফরকারীদের হয়ে সর্বোচ্চ ৭৫ রান করেন ব্র্যান্ডন টেইলর। আর দারুণ বল করে টাইগারদের হয়ে ক্যারিয়ার সেরা ৩ উইকেট তুলে নেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন।

দ্বিতীয় ওয়ানডেতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টসে জিতে ফিল্ডিং বেছে নেন বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা।

মাশরাফির ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্তকে সঠিক প্রমাণ করে শুরুতেই হ্যামিল্টন মাসাকাদজাকে মাঠ ছাড়া করান মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন। ৫.৪ ওভারে প্রতিপক্ষের দলীয় ১৮ রানের মাথায় ব্যক্তিগত ১৪ রানে জিম্বাবুয়ে অধিনায়ককে ফেরান এই তরুণ অলরাউন্ডার।

আর ব্যাটিংয়ে নামা জিম্বাবুয়ের মাসাকাদজার পর  মেহেদি হাসান মিরাজের বলে ফিরে গেলেন আরেক ওপেনার। ২৭ বলে ২০ রান করা চিপহাস জুহওয়াওকে ফজরে রাব্বির ক্যাচে প্যাভিলিয়নমুখী করেন তিনি।

ভয়ংকর হয়ে ওঠা ব্র্যান্ডন টেইলরকে বিদায় করেন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। ক্যারিয়ারের নবম হাফসেঞ্চুরি করে ৭৩ বলে ৯টি চার ও একটি ছক্কায় ৭৫ রান করার পর রিয়াদের বলে এলবির ফাঁদে পড়েন টেইলর। শেন উইলিয়ামসের সঙ্গে তিনি ৭৭ রানের জুটি গড়েন।

হাফসেঞ্চুরি থেকে তিন রান দূরে থাকতে মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনের বলে বিদায় নেন শেন উইলিয়ামস। ৭৬ বলে দুটি চারে তিনি মুশফিককে ক্যাচ দেন।

মাত্র এক রানের জন্য হাফসেঞ্চুরি বঞ্চিত হলেন সিকান্দার রাজা। তার এই আফসোসের কারণ মাশরাফি বিন মর্তুজা। বাংলাদেশ অধিনায়কের বলে ৬১ বলে ৩টি চার ও দুটি ছক্কায় ৪৯ করে বিদায় নেন রাজা।পরের ওভারেই মোস্তাফিজুর রহমানকে তুলে মারতে গিয়ে বিদায় নেন ১৭ রান করা পিটার মুর।

উইকেটে এসে থিতু হতে পারেননি অভিজ্ঞ এল্টন চিগুম্বুরা। মাত্র ৩ রান করে মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনের বলে নাজমুল ইসলামের কাছে ক্যাচ দেন তিনি।

তিন ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে বুধবার (২৪ অক্টোবর) চট্টগ্রামের জহুর আহম্মেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় দুপুর আড়াইটায় মাঠে নামে দু’দল।

এদিন কোনো পরিবর্তন ছাড়াই মাঠে নেমেছে বাংলাদেশ। অন্যদিকে জিম্বাবুয়ে দলে এসেছে একটি পরিবর্তন। ক্রেইগ আরভিনের বদলে দলে ফিরেছেন অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার এল্টন চিগুম্বুরা।

প্রথম ম্যাচে ২৮ রানে হেরে যায় জিম্বাবুয়ে।

About admin